সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম বাবহারে ডিএমপি এর সতর্কতা

FB_IMG_1571977580298

মুহাম্মদ শাফীউল ইসলাম, চান্দগাঁও, চট্টগ্রাম প্রতিনিধিঃ হঠাৎ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের অ্যাকাউন্ট গুলো খুব বেশী কম্প্রোমাইজড (হ্যাকিং)  হয়ে যাচ্ছে। হ্যাকড হওয়া প্রোফাইল নিয়ে নানা অপকর্ম করাও হচ্ছে। সেটা সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট করা থেকে ব্ল্যাকমেইল বা সম্মানহানি বা চাঁদাবাজি পর্যন্ত গড়াচ্ছে।

এ সংক্রান্তে সাইবার নিরাপত্তা ও অপরাধ দমন বিভাগ অনেক অভিযোগ পাচ্ছে। এটা অনেক সময় ব্যবহারকারীদের অসাবধানতা ও অনেক সময় জায়ান্ট ভেন্ডরদের নিরাপত্তা ঘাটতি বা অনেক সময় ব্যবহারকারী দের অজ্ঞতার কারনে হচ্ছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম বাবহারে ডিএমপি নিম্নোক্ত বিষয় গুলো সতর্কতা অনুসরণ করতে অনুরোধ করেছনে।

১.  Two factor authentication অন করুন। এটা  Settings এ ঢুকে Security and Logon এ পাবেন। একটা মোবাইল নাম্বার যোগ করুন যেটাতে আপনার কন্ট্রোল রয়েছে। বিদেশ ভ্রমনের সময় কিছু কোড জেনারেটেড করে রাখুন, যাতে জরুরী সময় ব্যবহার করতে পারেন।

২. সবার আগে গোপনীয় ও সেন্সেটিভ কনভারসেশনগুলো সাথে সাথে মুছে ফেলুন। হ্যাকড হয়ে গেলে এইসব কনভারসেশনগুলো দিয়ে হ্যাকাররা ব্ল্যাকমেইল করতে পারে বা ফিনান্সিয়াল তথ্য গুলো হাতিয়ে নিয়ে আপনার ক্ষতি করতে পারে।

৩. ফিশিং লিংক গুলো চিনতে চেষ্টা করুন এবং এভোয়েড করুন।

৪. জাতীয় পরিচয়পত্র মোতাবেক ফেইসবুক প্রোফাইল বানান বিশেষ করে জন্মতারিখ ও নাম সঠিক করে লিখুন; ‘angel তানিশা’ বা ‘ভোরের পাখি’ ধরনের নাম পরিহার করুন; নতুবা ফেইসবুক অথরিটি পরে মিথ্যা বা ফেইক ভেবে বিপদের সময় রেসপন্স নাও করতে পারে।

৫. সবাই  নিজের প্রোফাইলের লিংক টা মনে রাখুন এবং নিউমেরিক আইডি টা কোথাও টুকে রাখুন যাতে হ্যাকড হয়ে গেলেও এটা রেফারেন্স হিসেবে রাখা যায়।

৬. জাতীয় পরিচয়পত্র বা পাসপোর্ট কপি অজ্ঞাত কাউরে দিবেন না বা যাকে দিচ্ছেন তাকে এই কপির অপব্যবহার রোধে সতর্ক করুন, নইলে এই কপি ব্যবহার(submit) করে স্পামাররা আপনার আইডি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে নিবে।

৭. Settings এ ঢুকে Security and Logon এ WHERE YOU’RE LOGGED ON দেখুন অপরিচিত কোন ডিভাইস থেকে আপনার আইডি ব্যবহার করা হচ্ছে কিনা? হয়ে থাকলে সেই ডিভাইসগুলো রিমুভ করুন।

৮. পারলে Settings এ ঢুকে Security and Logon এ  SETTING UP EXTRA SECURITY তে ৩/৫ জন trusted contact যোগ করুন।

৯. যে মেইল আইডি দিয়ে ফেইসবুক প্রোফাইল খুলেছেন সেটার পাসওয়ার্ড মনে রাখুন এবং সেটা নিরাপদে রাখুন। পারলে সেটারও টু ফ্যাক্টর অথেনটিকেশন চালু করুন। অনেক পুরনো Yahoo মেইল দিয়ে প্রোফাইল খুলে থাকলে এখুনি Yahoo মেইল টি পরিবর্তন করে Gmail বা অন্য নিরাপদ ইমেইল ব্যবহার করুন। Yahoo মেইল টি হ্যাকড হবার সমূহ সম্ভাবনা রয়েছে, এটা Yahoo এর একটি দূর্বলতা।

১০. যে কোন সহায়তার জন্য সাইবার নিরাপত্তা ও অপরাধ বিভাগের হটলাইনে কল করুনঃ ০১৭৬৯৬৯১৫২২ এবং কানেক্টেড থাকুন এই পেইজেঃ Cyber Security & Crime Division, CTTC, DMP.

সাইবার জগতে নিরাপদ থাকুন, নিরাপদ রাখুন।